শিরোনাম :
রাজশাহীতে র‌্যাব সদস্যকে পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ

রাজশাহীতে র‌্যাব সদস্যকে পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ

রাজশাহীতে র‌্যাব সদস্যকে পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ
আহত র‌্যাব সদস্য

পুঠিয়া প্রতিনিধিঃ রাজশাহীর পুঠিয়ায় ছুটিতে থাকা র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটিলিয়ান (র‌্যাব) এর এক সদস্যকে পিটিয়ে আহত করেছে তার শ্বশুর বাড়ির লোকজন। পারিবারিক কলহের জের ধরে স্ত্রী, শ্বশুর, শ্বাশুরিসহ ৪ জন বাড়িতে এসে তাকে পিটিয়ে আহত করে।

আজ শনিবার বেলা সাড়ে ১০ টা থেকে পৌনে ১১ টার মধ্যে উপজেলার সদরে একটি ভাড়া বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। বর্তমানে পুঠিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধিন রয়েছেন। আহত র‌্যাব সদস্যের সাথে কথা বলে বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া গেছে।

আহত র‌্যাব সদস্যের নাম ফারুক হোসেন (২৮) তিনি উপজেলার পৌরসভার ১ নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা ওকা মন্ডলের ছেলে। তিনি র‌্যাব-২ এর পাবনা ক্যাম্পে কর্মরত ছিলেন তবে বর্তমানে তাকে র‌্যাব থেকে বাংলাদেশ সেনাবাহীনিতে বদলী করা হয়েছে তবে এখনও তিনি সেখানে যোগদান করেননি।

হাসপাতালে আহত র‌্যাব সদস্য জানান, পারিবারিক কলহের জের ধরে তিনি দীর্ঘদিন ধরে স্ত্রী সম্পা কে নিয়ে উপজেলা সদরে ভাড়া বাসায় থাকতেন। সম্প্রতি তাকে র‌্যাব থেকে সেনাবাহিনীতে বদলী করা সুবাদে কয়েকদিনের ছুটিতে এসেছিলেন। আগামীকাল রোববার (১৩ অক্টোবর) সেনাবাহিনীতে যোগদান করতে প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন। কিন্তু পারিবারিক কলহের জের ধরে স্ত্রী সম্পা খাতুনের (২০) সাথে কথা কাটাকাটি হওয়ায় স্ত্রী সম্পা ফোন করে তার বাবা মুগোল আলী (৫০), মা আমবিয়া বেগম (৪৫) ও বড় ভাই চঞ্চল (৩০) কে বাসায় ডেকে আনেন। তারা বাসায় এসে হইচই শুরু করলে তিনি এর প্রতিবাদ করেন পরে তারা সংঘবন্ধ চারজন এলোপথাড়ি ভাবে মারধর করে তার মোবাইল ফোন ও প্রয়োজনিয় কাগজ পত্র কেড়ে নেয়। পরে তিনি সেখান থেকে পালিয়ে রক্ষা পান। বর্তমানে তিনি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধিন রয়েছেন। এ ব্যপারে তাদের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান তিনি।

হাসপাতালের চিকিৎসক জানান, তার মাথা মুখোমন্ডলসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহৃ রয়েছে। ধারনা করা হচ্ছে কিল ঘুষি ছাড়াও লাঠি জাতিয় কিছু দিয়ে তাকে আঘাত করা হয়েছে। তবে কোথাও গুরুতর জখমের চিহৃ পাওয়া যায়নি।

এ ব্যপারে চেষ্টা করেও র‌্যাব সদস্যের স্ত্রীর পরিবারের কারে সাথে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

শনিবার দুপুর ২ টায় মুঠোফোনে জানতে চাইলে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি রেজাউল ইসলাম জানান, এ ধরনের কোন অভিযোগ থানায় আসেনি।

মতিহার বার্তা ডট কম – ১২ অক্টোবর ২০১৯

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply