শিরোনাম :
ভারতের বিরুদ্ধে শেষ সময়ের গোলে জয়বঞ্চিত হলো বাংলাদেশ

ভারতের বিরুদ্ধে শেষ সময়ের গোলে জয়বঞ্চিত হলো বাংলাদেশ

ভারতের বিরুদ্ধে শেষ সময়ের গোলে জয়বঞ্চিত হলো বাংলাদেশ

ক্রীড়া ডেস্ক : মাঠ ছেড়ে যাওয়ার সময় হয়তো খুব কষ্টই হচ্ছিলো জামাল ভূঁইয়ার। হবেই বা না কেন? ভারতের বিরুদ্ধে প্রতিশোধ নেয়ার সুবর্ণ সুযোগ পেলেও শেষ সময়ে আদিল খানের গোলে স্বপ্ন ভঙ্গ হয় বাংলাদেশের। বিশ্বকাপ ও এশিয়া কাপের যৌথ বাছাইপর্বে নিজেদের তৃতীয় ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছিলো বাংলাদেশ-ভারত। ম্যাচের ৮৮ মিনিট পর্যন্ত এগিয়ে থেকেও জয় না নিয়ে মাঠ ছেড়েছে জেমি ডের শিষ্যরা।

কলকাতার সল্টলেক স্টেডিয়াম প্রায় ৮০ হাজার দর্শকের ইন্ডিয়া ইন্ডিয়া রবে মুখরিত ছিলো। কিন্তু ম্যাচের ৪২ মিনিটে সেই মাঠে পিনপতন নীরবতা শুরু হয়। কেননা ওই সময়ে সাদ উদ্দীন যে অসাধ্য সাধন করেন, সেটা দেখে থমকে গিয়েছিলো ভারতবাসী। জামাল ভূঁইয়ার ফ্রিকিক থেকে উড়ে আসা বলে নিজেও উড়ে গিয়ে হেড দিয়ে বল পাঠান ভারতের জালে। আর থেমে যায় ইন্ডিয়া ইন্ডিয়া ধ্বনি।

তবে তার আগে বাংলাদেশ দুয়েকটি আক্রমণ করলেও ভীতি ছড়িয়েছিলো ভারত। কিন্তু বারবারই ত্রানকর্তা হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন গোলরক্ষক আশরাফুল ইসলাম রানা। সেই সঙ্গে ডিফেন্ডার ইব্রাহিম ও ইয়াসিনও দারুণভাবে রক্ষণভাগে সামাল দেন।

১-০ গোলে লিড নিয়ে ভারতের সঙ্গে বিরতিতে যায় বাংলাদেশ। ফিরে এসে বাংলাদেশের উপর চড়াও হয় ব্লু টাইগার্সরা। বাংলাদেশের গোলমুখে একের পর এক শট নেন সুনীল ছেত্রী। কিন্তু সীমান্তের অতন্দ্র প্রহরীর ভূমিকায় রানা বারবার সব আক্রমণ রুখে দেন।

এমনকি ৬২ মিনিটে বাংলাদেশের জালে বল প্রায় ঢুকিয়ে দিয়েছিলেন আনাস আদাথোড়িকা। কিন্তু গোলরক্ষকের নাগালের বাইরে থাকা বল হেড দিয়ে বারের উপর দিয়ে বাইরে পাঠিয়ে দিয়ে বাহবা কুড়ান ইব্রাহিম।

সবকিছু ঠিকঠাকই ছিলো। যখন জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ার পরিকল্পনা করছিলেন বাংলাদেশের ফুটবলাররা। ঠিক তখনই আদিল খানের হেড থেকে প্রচণ্ড গতিতে বল জড়িয়ে যায় বাংলাদেশের জালে। আর তাতেই পয়েন্ট ভাগাভাগি করে নিতে হলো প্রতিবেশী দুই দলকে। সুত্র: আমাদের সময়

মতিহার বার্তা ডট কম – ১৫ অক্টোবর ২০১৯

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply