শিরোনাম :
সাধারণ মানুষ সমাবেশ প্রত্যাখান করেছে, রাসিক মেয়র লিটন রাজশাহী নগরীর ঐতিহাসিক মাদ্রাসা মাঠে বিএনপির গণসমাবেশ শুরু কাজ হল না বিষেও! আসামির মৃত্যু নিশ্চিত করতে ভয়ঙ্কর পন্থা নিলেন জেল কর্তৃপক্ষ সঙ্গ পেতে মহিলাকে নিয়ে কলকাতার হোটেলে, প্রতিশ্রুতি মতো টাকা না দেওয়ায় ধৃত ৩ বাংলাদেশি প্রি-কোয়ার্টার ফাইনালে উঠে এখন লজ্জায় মুখ দেখাতে পারছেন না স্পেনের কোচ, কেন? বদলের ব্রাজিলে নজিরের মুখে দাঁড়িয়ে আলভেস, পেলেকে শুভেচ্ছা জানিয়ে নামছে সেলেকাওরা বিশ্বকাপে নেমারের খেলার সম্ভাবনা নিয়ে এ বার মুখ খুললেন তাঁর বাবা রাজশাহীতে আনোয়ার হোসেন উজ্জলের নেতৃত্বে হাজার হাজার মানুষের মিছিল অনুষ্ঠিত শীত উপেক্ষা করে খোলা মাঠে রাত কাটালো বিএনপির নেতাকর্মীরা রাজশাহীতে বিএনপির সমাবেশে যেতে পথে পথে বাধা
রাজশাহী নগরীতে নিজের নাবালিকা মেয়েকে ধর্ষণ করল কসাই পিতা

রাজশাহী নগরীতে নিজের নাবালিকা মেয়েকে ধর্ষণ করল কসাই পিতা

নিজস্ব প্রতিবেদক: পাপ কখনো চাপা থাকে না। এমনি একটি উদাহরণ রাজশাহী নগরীতে। গলায় ছুরি ধরে জোর করে নিজের (১৪) বছরের নবালিকা মেয়েকে ধর্ষণ করেছে নজরুল (৫০) নামের এক লম্পট পিতা।

গতকাল মঙ্গলবার দুপুর ২টার দিকে এ পাপ কমের্র বিষ্ফোরণ ঘটলো তার স্ত্রী নার্গিসের মাথা ফাটিয়ে।

ঘটনাটি ঘটেছে, রাজশাহী নগরীর রাজপাড়া থানাধিন সিলিন্দা এলাকায়। ধর্ষিতা নাবালিকার বড় বোন নূপুর রাজশাহীর সময়কে বলেন, আমার পিতা নজরুল পেশায় একজন কসাই। আমাদের তিন বোনের মধ্যে সবার ছোট ধর্ষিতা বোনটি। সে স্থানীয় একটি স্কুলের ৮ম শ্রেণীতে পড়ে।

গত অনুমানিক ছয় মাস পূর্বে বাড়িতে একা পেয়ে আমার পিতা তার গলায় ধারালো ছুরি ধরে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে এবং কাউকে বল্লে জবাই করে ফেলবে বলে হুমকি দেয়।

ঘটনার তিন মাস পেরিয়ে গেলে আমার বোন অন্তঃসত্বা হয়ে পড়লে বিষয়টি আমাদের খুলে বলে। ছোট বোনের ভবিষ্যত আর লজ্জা ঢাকতে আমার মা গোপনে তাকে হাসপাতালে নিয়ে গিয়ে বোনের বাচ্চা নষ্ট করায়।

তিনি আরো বলেন, বোনকে ধর্ষণ করার পর থেকে পিতা আমাদের বাড়িতে নিজ থেকেই আসা-যাওয়া বন্ধ করে দেয় এবং অন্যত্র বিবাহ্ করে দরিখরবনা এলাকায় বসবাস করে।

হঠাৎ গত মঙ্গলবার দুপুরে আমার বাবা আমাদের বাড়িতে এসে রাগাম্বিত হয়ে মাকে বলে তুই আমার নামে দূর্ণাম রটাচ্ছিস কেন ? উত্তরে “মা” বাবাকে বলেন, তোমার মতো পাপি মানুষের সাথে কথা বলার রুচি আমার নাই।

এ সময় বাবা ইট দিয়ে মায়ের মাথায় আঘাত করে। রক্তাক্ত অবস্থায় মা মাটিতে লুটিয়ে পড়লে প্রতিবেশিরা এগিয়ে আসে। এ সময় রাগের মাথায় মা ও ধর্ষিতা বোন কুকর্মের কথা বলতেই বাবা পালিয়ে যায়।

পরে স্থানীয়রা মাকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে নিয়ে যান। এবং সেখানে ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস (ওসিসি) ওয়ার্ডে ভর্তি করেন। বর্তমানে তিনি সেখানেই চিকিৎসাধিন রয়েছেন।

ধর্ষিতা নাবালিকা রাজশাহীর সময়কে জানায়, তার পিতা গলায় ছুরি ধরে জোর করে তাকে ধর্ষণ করেছে এবং কাউকে বল্লে জবাই করে হত্যা করা হবে বলে হুমকি দিয়েছে।

লজ্জা ঢাকতে এবং আমার ভবিষ্যত চিন্তা করে আমার মা আমাকে হাসপাতালে নিয়ে গিয়ে পেটের বাচ্চা নষ্ট করে।

এ দিকে নিজ পিতা কর্তৃক নাবালিকা মেয়ে ধর্ষনের ঘটনা এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে এলাকার সর্ব শ্রেণীর নারী-পুরুষ ওই নাবালিকার বাড়িতে ভিড় জমায়। শুরু হয় গুঞ্জন আর বিচারের দাবি।

পরে স্থানীয়দের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে রাজপাড়া থানার এসআই আশরাফুল ও সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে নাবালিকার বাড়িতে যান এবং তার বক্তব্য শোনেন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে গতকাল বুধবার সকালে রাজপাড়া থানার এসআই আশরাফুল জানায়, ধর্ষিতা নাবালিকার মুখে বক্তব্য শুনেছি, থানায় এসে বিষয়টি অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ হাফিজ স্যারকে অবহিত করেছি। তিনি প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ দিয়েছেন।

এ বিষয়ে রাজপাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ হাফিজ বলেন, নাবালিকা ধর্ষনের বিষয়টি আমি অবগত। তবে ধর্ষিতার পরিবার থেকে অভিযোগ পেলে মামলা নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

জানতে চাইলে একই কথা বলেন, বোয়ালিয়া জোনের এডিসি আব্দুর রশিদ।

মতিহার বার্তা ডট কম – ১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *