স্ত্রী সুন্দরী প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়ায়, যাজককে শাস্তি হিসেবে প্রত্যন্ত গ্রামে বদলি

স্ত্রী সুন্দরী প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়ায়, যাজককে শাস্তি হিসেবে প্রত্যন্ত গ্রামে বদলি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : রাশিয়ার উরাল এলাকার একজন অর্থোডক্স যাজককে শাস্তি হিসেবে প্রত্যন্ত একটি গ্রামে বদলি করা হয়েছে। তার স্ত্রী একটি সুন্দরী প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়ায় শাস্তি হিসেবে এই পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে।

লেন্ট চলার সময় তার স্ত্রী একটি সুন্দরী প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছিলেন। লেন্ট হচ্ছে ইস্টার সানডের আগে খৃষ্টান ধর্মাবলম্বীদের একটি ধর্মীয় প্রক্রিয়া। সে সময় অনেকে উপবাস করেন এবং বিলাসী দ্রব্য ব্যবহার এড়িয়ে চলেন।

ওই যাজকের স্ত্রী ওকসানা যোটোভা ম্যাগনিটোগোরস্ক শহরের একটি সৌন্দর্য চর্চা কেন্দ্র পরিচালনা করেন। সম্প্রতি তিনি ‘মিস সেনসুয়ালিটি’ পুরস্কার পান।

তবে তিনি ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েন যখন রাশিয়ার পিকাবু নামের একটি সামাজিক মাধ্যমে প্রকাশ করা হয় যে, তিনি একজন অর্থোডক্স যাজকের স্ত্রী।

যখন গীর্জার লোকজন এই তথ্যটি জানতে পারে সঙ্গে সঙ্গে যাজক সের্গেই যোটভকে ম্যাগনিটোগোরস্ক ক্যাথেড্রাল থেকে অব্যাহতি দেয়া হয় এবং ৬৫ কিলোমিটার দূরের একটি গ্রামে বদলি করা হয়। ওই গ্রামে জনসংখ্যা মাত্র ৪ হাজার।

আর্চপ্রিস্ট ফিওডর সাপ্রিকিন বলেছেন, একজন যাজকের স্ত্রীর এভাবে একটি অনুষ্ঠানে নিজেকে খোলামেলাভাবে তুলে ধরাটা একটি বড় পাপ। তিনি রায় দিয়েছেন, যতদিন তার স্ত্রী প্রায়শ্চিত্ত না করবেন, ততদিন আর ওই যাজককে পুনর্বহাল করা হবে না।

তিনি প্রশ্ন তুলেছেন, ইনি কেমন যাজক, যে তার নিজের পরিবারকে নিয়ন্ত্রণ করতে পারে না? তিনি কিভাবে একটি ধর্মীয় সমাবেশ নিয়ন্ত্রণ করবেন?’ ।

এই ঘটনাটি রাশিয়ায় ব্যাপক আলোড়ন তৈরি করেছে। দেশটির অনেক সংবাদ মাধ্যম এবং অনলাইন ফোরামে খবরটি প্রকাশিত হয়েছে।

একজন লিখেছেন, এই হলো ব্যাপার যা এই যাজকের স্ত্রীর সম্পর্কে জানা উচিত এবং যাজকের ব্যাপারেও। তারা বয়ান করে এক জিনিস আর চর্চা করে অন্য জিনিস।

তবে অনেকে চার্চের এই সিদ্ধান্তের সমালোচনা করেছেন এবং এই যুগলের পক্ষে দাঁড়িয়েছেন। কেন তিনি নিজের জীবন উপভোগ করতে পারবেন না? এখনো কি এমন মানুষ আছে যারা বিশ্বাস করে যাজকরা সব অন্যায়ের ঊর্ধ্বে? তারাও সাধারণ মানুষ, যারা ভালো একটি চাকরি করছেন।

আরেকজন প্রশ্ন তুলেছেন, সমস্যাটা কোথায়? বাইবেলে কোথায় বলা আছে যে, একজন যাজকের সুন্দরী স্ত্রী থাকতে পারবে না?

মতিহার বার্তা ডট কম ১৬ এপ্রিল ২০১৯

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *