শিরোনাম :
প্রেমিকার বাড়ির সামনে বিষপানে প্রেমিকের মৃত্যু; বেরিয়ে আসছে চাঞ্চল্যকর তথ্য ‘শাড়ি ক্যানসার’ কেন হয়? তার উপসর্গই বা কী? জানালেন চিকিৎসক ডায়াবেটিকেরাও ভাত খেতে পারেন, তবে মানতে হবে কিছু নিয়ম মল্লিকার সঙ্গে চুমু বিতর্ক, মুখ দেখাদেখি বন্ধ কুড়ি বছর, সাক্ষাৎ পেয়ে কী করলেন ইমরান? ক্যাটরিনার জন্যই সলমনের সঙ্গে সম্পর্কে দূরত্ব, ইদে স্বামীকে নিয়ে ভাইজানের বাড়িতে আলিয়া! রাজশাহী মহানগরীতে পুলিশের অভিযানে গ্রেফতার ২৬ ১৬ মাসের মেয়েকে বাড়িতে একা রেখে ছুটি কাটাতে যান মা, না খেয়ে, জল না পেয়ে মৃত্যু! সাজা যাবজ্জীবন রাজশাহীতে ট্রাকে টোল আদায়ের নামে চাঁদাবাজি, আটক ২ পুঠিয়ায় পুলিশের উপর হামলার অভিযোগে গ্রেফতার ৩ ঈদের সাথে যুক্ত হওয়া নববর্ষের উচ্ছ্বাসে বিনোদন স্পট পরিপূর্ণ
যুদ্ধে ইউক্রেন ধ্বংসের করুণ ছবি দেখাল উপগ্রহ

যুদ্ধে ইউক্রেন ধ্বংসের করুণ ছবি দেখাল উপগ্রহ

যুদ্ধে ইউক্রেন ধ্বংসের করুণ ছবি দেখাল উপগ্রহ
যুদ্ধে ইউক্রেন ধ্বংসের করুণ ছবি দেখাল উপগ্রহ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : দেখতে দেখতে ২ বছর পূর্ণ হল রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের। এখনও নিশ্চিত নয়, কবে থামবে এই রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ। প্রাথমিক ভাবে পুতিনরা বেকায়দায় পড়লেও সাম্প্রতিক পরিস্থিতিতে দেখা যাচ্ছে, পালটা মার দিয়ে ফের ইউক্রেনকে বেগ দিচ্ছে মস্কো। কিন্তু এই লড়াইয়ে আসলে যে পরাজয় ঘটেছে মানুষেরই, সেই ছবি ধরা পড়ল উপগ্রহ চিত্রে।

২০২২ সালের ২৪ ফেব্রুয়ারি প্রথমবার ইউক্রেনের আকাশে ঢুকে পড়েছিল রুশ যুদ্ধবিমান। শুরুর দিকে পিছু হঠলেও, দ্রুত পালটা মার দিতে শুরু করে ইউক্রেনীয় সেনা। আমেরিকা ও ন্যাটো সামরিক জোটের মিসাইল, বোমায় বলীয়ান হয়ে বর্তমানে রণক্ষেত্রের ছবি পালটে দিয়েছে কিয়েভ। এবার রুশ সেনা আবার ইউক্রেনকে বেগ দিতে শুরু করেছে রাশিয়া। এই দুই বছরের সংঘাতে সাধারণ মানুষকে কতটা বিপণ্ণ হতে হয়েছে, তা বুঝিয়ে দিয়েছে ‘পাখির চোখে’ দেখা চিত্র। বাখমুট হোক কিংবা ফেওডসিয়া, আভডিভকার মতো প্রদেশের ছবিতে দেখা যাচ্ছে সবুজে ঘেরা জনবসতিগুলো ধূসর জনহীন প্রান্তরে পরিণত হয়েছে। যুদ্ধের ‘ক্যানসার’ কীভাবে সভ্যতাকে ধ্বংস করে দেয়, সেই করুণ বাস্তব চিত্র ফুটিয়ে তুলছে উপগ্রহের তোলা এই সব ছবি।

রাশিয়া সম্প্রতি জানিয়েছে, তারা আভডিভকা সম্পূর্ণ ভাবে দখল করেছে। এর পরই ইউক্রেনের তরফে জানানো হয়েছে, ”ইউরোপে শান্তির দিন গত হয়েছে।” রাষ্ট্রসংঘ জানাচ্ছে, রাশিয়ার হামলার পর থেকে ইউক্রেনের ১.৪ কোটি মানুষ বাড়ি থেকে পালিয়েছেন। মারা গেছে, সাড়ে দশ হাজার সাধারণ মানুষ। সব মিলিয়ে পরিস্থিতি অত্যন্ত মর্মান্তিক। ওয়াকিবহাল মহল মনে করছে, ২০২৪ সালেও এই যুদ্ধের নিষ্পত্তি হওয়ার সম্ভাবনা কম। ফলে আগামিদিনের ছবিটা আরও কতটা মর্মন্তুদ হতে চলেছে তা ভাবলেই শিউরে উঠছেন সারা বিশ্বের শান্তিকামী মানুষরা।

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply