শিরোনাম :
রাজশাহী মহানগরীতে গ্যাস সিলিন্ডার কেটে বিক্রির সময় গ্রেপ্তার ৩ রাজশাহী মহানগরীতে পুলিশের অভিযানে গ্রেফতার – ১৮ মোহনপুরে বিপুল পরিমান গাঁজা-সহ গ্রেফতার মাদক কারবারী রানবীর জাহান রাজশাহী জেলা পরিষদের পক্ষ থেকে বীর মুক্তিযোদ্ধা সদস্যদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতারণ সিরাজগঞ্জে ছিনতাই চক্রের সক্রিয় ৫জন সদস্য গ্রেফতার চকলেটের প্রলোভনে সাত বছরের শিশুকে ধর্ষণের চেষ্টা রুয়েট কেন্দ্রে ১ম বর্ষ সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষা সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন মেস মালিকদের কাছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন অসহায় রাজশাহীতে মাদক কারবারী, মাদকসেবী, ও ২জন পলাতক আসামী-সহ গ্রেফতার- ৮ বেলপুকুর থানার অভিযানে ২ বছরের সাজাপ্রাপ্তসহ ওয়ারেন্টভুক্ত আসামি গ্রেপ্তার
মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে এসে চুরি করছে রোহিঙ্গা নারীরা

মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে এসে চুরি করছে রোহিঙ্গা নারীরা

মতিহার বার্তা ডেস্ক : রেকর্ডসংখ্যক সন্তানদানের কারণে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গার সংখ্যা ইতিমধ্যে ১৫ লাখ ছাড়িয়েছে। মিয়ানমারের সংখ্যালঘু এ জাতিগোষ্ঠীর সদস্যরা ২০ মাস আগে যখন বাংলাদেশে আশ্রয় নেয় তখন তাদের মধ্যে ৫০ হাজার নারীই ছিলো সন্তানসম্ভবা। বাংলাদেশে প্রবেশের পর আরও লক্ষাধিক নারী সন্তান জন্ম দিয়েছেন। রোহিঙ্গাদের ওপর মিয়ানমারের নির্যাতনে কারণে লাখো রোহিঙ্গাকে মানবতার খাতিরে বাংলাদেশে আশ্রয় দেয় আওয়ামী লীগ সরকার। অথচ এই মহানুভবতাকে পুঁজি করে রোহিঙ্গারা বাংলাদেশের মানুষের ওপর নির্যাতন চালাচ্ছে।সূত্র: বাংলা নিউজ ব্যাংক

এ প্রসঙ্গে কথা হয় টেকনাফের স্থানীয় বাসিন্দা বশির আলীর সঙ্গে। তিনি বলেন, রোহিঙ্গাদের অতিরিক্ত জনসংখ্যার কারণে বাংলাদেশিরাই এখানে সংখ্যালঘুতে পরিণত হচ্ছে। এখানে রোহিঙ্গারা আমাদের ওপর যখন তখন হামলা করে। অনেক রোহিঙ্গা যুবক বাংলাদেশিদের ঘরে ঢুকে সম্পদ লুট করে নিয়ে যাচ্ছে। সর্বশেষ কক্সবাজার রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে চট্টগ্রাম নগরে এসে চুরির ঘটনা ঘটিয়েছে রোহিঙ্গা নারীরা। গ্রেফতারের পর ওই নারীর কাছ থেকে চুরি করা চারটি মোবাইল সেট উদ্ধার করেছে পুলিশ। রোববার (২৬ মে) নগরের সিনেমা প্যালেস এলাকা থেকে ফাতেমা বেগম (২০) নামে ওই রোহিঙ্গা নারীকে গ্রেফতার করে কোতোয়ালী থানা পুলিশ। এমন নানা অপরাধে জড়িয়ে দিন দিন ভয়াবহ হয়ে উঠছে রোহিঙ্গারা।

এ প্রসঙ্গে কোতোয়ালী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. কামরুজ্জামান বলেন, ঈদকে কেন্দ্র করে কক্সবাজার রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে চট্টগ্রাম নগরে এসে চুরিতে জড়িয়েছে রোহিঙ্গা নারীরা। গ্রেফতার হওয়া ফাতেমা বেগম বিভিন্ন মার্কেটে ভিড়ের মধ্যে নারীদের ভ্যানিটি ব্যাগ থেকে টাকা, মোবাইলসহ গুরুত্বপূর্ণ জিনিস চুরি করে। ফাতেমা বেগমের কাছ থেকে চারটি মোবাইল সেট উদ্ধার করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে মাদক আইনে ২০১৭ সালে দায়ের হওয়া একটি মামলা রয়েছে।

কামরুজ্জামান আরও বলেন, আগে শুধু রোহিঙ্গা পুরুষরা চুরি এবং ছিনতাই করতো। কিন্তু বর্তমানে নারীরাও এ অপকর্মে জড়িয়ে পড়ছে। এছাড়া বক্সিরহাট এলাকায় চুরি করার সময় হাতেনাতে স্বপ্না (৩২) নামে আরো এক রোহিঙ্গা চোরকে গ্রেফতার করেছি আমরা। এভাবে যদি লাখ লাখ রোহিঙ্গা অপকর্মের সঙ্গে জড়িয়ে যায়, তবে আইনশৃঙ্খলাবাহিনী দ্বারা এ অপকর্ম রোধ করা অসম্ভব হয়ে পড়বে বলে আশা করছি।

মতিহার বার্তা ডট কম – ৮ মে, ২০১৯

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply