শিবলিঙ্গের অবমাননার অভিযোগ, সলমনের বিরুদ্ধে

শিবলিঙ্গের অবমাননার অভিযোগ, সলমনের বিরুদ্ধে

বিনোদন ডেক্স : সলমনের অন্য়তম জনপ্রিয় হিট ছবি দাবাং-থ্রির শ্যুটিং শুরু করেছেন সলমন। বেশকিছুদিন ধরেই সলমনের শ্যুটিংয়ের বেশকিছু ছবি ভাইরাল হচ্ছে নেট দুনিয়ায়। তবে এবার প্রকাশ্যে আসা শ্যুটিংয়ের একটি ছবি ঘিরেই তৈরি হয়েছে তীব্র বিতর্ক।

মধ্যপ্রদেশের ধর্মীয় শহর মহেশ্বরে শ্যুটিং করছেন সলমন। ছবির শ্যুটিং সেট তৈরি করা হয়েছে নর্মদার পাড়ে। শ্যুটিংয়ের যে ছবি প্রকাশ্যে এসেছে তাতে দেখা যাচ্ছে নর্মদার পাড়ে থাকা শিবলিঙ্গের উপর একটি কাঠের তক্তা পেতে তার উপর দিয়ে হাঁটাচলা করছেন সলমন ও তাঁর সেটের অন্যান্য কর্মীরা।

কেউ কেউ অভিযোগ করেছেন, সলমন শিবলিঙ্গ ঢাকা ওই তক্তার উপর ওঠে নেচেছেন, যা অন্যায়। আর এই ছবি প্রকাশ্যে আসার পর অভিযোগ ওঠে সলমন ধর্মীয় ভাবাবেগে আঘাত করছেন।

প্রসঙ্গত, মধ্যপ্রদেশের শাসক দল কংগ্রেস, আর বিরোধীপক্ষ হল বিজেপি। এবিষয়ে ভোপালের বিজেপি নেতা রামেশ্বর শর্মার অভিযোগ, ”কমলনাথের সময়কালে এই রাজ্যে হিন্দুদের অবমাননা হচ্ছে।

শিবলিঙ্গের অপমানের জন্য সলমনের বিরুদ্ধে এফআইআর করা উচিত।” অন্যদিকে এবিষয়ে কংগ্রেসের পাল্টা অভিযোগ, ” বিজেপি ইচ্ছাকৃতভাবে এবিষয়টি নিয়ে রাজনীতি করার চেষ্টা করছে। এটা ওদের নিম্ন মানসিকতার পরিচয়। যেকারণে গত ১৫ বছর এই রাজ্যে ক্ষমতায় থেকেও বিজেপি কোনও উন্নতিই করতে পারেনি।

এদিকে বিষয়টি নিয়ে বিতর্ক তৈরি হওয়ার ঠিক পরপরই ওই শিবলিঙ্গের উপর শ্যুটিংয়ের জন্য লাগানো তক্তা সরিয়ে দেওয়া হয়। পুরো ঘটনার বিষয়ে অবশেষে সলমন খান নিজেই মুখ খুলেছেন।

তিনি বলেন, ”আমি সবথেকে বড় শিবভক্ত। আপনারা যদি এখানে শ্যুটিং করতে না দেন, তাহলে প্যাকআপ করে চলে যাব। মুখ্যমন্ত্রী কমলনাথের আগ্রহতেই আমি এখানে শ্যুটিং করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম। আমার এক দাদা এখানকার পুলিস আধিকারিক ছিলেন। আমি এখানে আমার বাড়ি ভেবেই এসেছি। আমি শ্যুটিংয়ের ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় সাধারণত পোস্ট করি না, তবে এক্ষেত্রে করছি কারণ এর নামের সঙ্গে মহেশ্বর শব্দটি আছে।

মতিহার বার্তা ডট কম ০৫ এপ্রিল ২০১৯

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply